রবিবার, ২৩ জুন ২০২৪ ।। ৯ আষাঢ় ১৪৩১ ।। ১৭ জিলহজ ১৪৪৫

শিরোনাম :

নেতানিয়াহু-সিনওয়ারের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আবেদন

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার
ফাইল ছবি

ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস নেতা ইয়াহিয়া সিনওয়ার ও ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী বেনিয়ামিন নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির আবেদন করেছেন আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের (আইসিসি) প্রসিকিউটর করিম খান। ইসরায়েলে হামাসের হামলা এবং এর ধারাবাহিকতায় গাজায় চলমান যুদ্ধে সংঘটিত যুদ্ধাপরাধ ও মানবতাবিরোধী অপরাধের অভিযোগে এই আবেদন করেছেন তিনি।

গতকাল সোমবার মার্কিন সংবাদমাধ্যম সিএনএনকে দেওয়া এক বিশেষ সাক্ষাৎকারে করিম খান এসব কথা জানান। ওই সাক্ষাৎকারে করিম খান জানান, নেতানিয়াহু ও সিনওয়ার ছাড়াও ইসরায়েলের প্রতিরক্ষামন্ত্রী ইয়োভ গ্যালান্ত ও হামাসের আরও দুই নেতা—সামরিক শাখা আল-ক্বাসাম ব্রিগেডের প্রধান মোহাম্মদ দায়েফ ইব্রাহিম আল-মাসরি ও হামাসপ্রধান ইসমাইল হানিয়ারও গ্রেপ্তারি পরোয়ানা চেয়েছেন। 

এখন গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারির এই আবেদনের বিষয়ে নেদারল্যান্ডসের হেগে অবস্থিত আইসিসির বিচারকদের একটি প্যানেল সিদ্ধান্ত দেবে। করিম খান জানান, গত ৭ অক্টোবর ইসরায়েলে হামলার ঘটনায় সিনওয়ার, হানিয়া ও দায়েফের বিরুদ্ধে ‘ব্যাপক হত্যাযজ্ঞ, হত্যা, লোকজন জিম্মি হিসেবে নেওয়া, ধর্ষণ এবং বন্দীদের যৌন নিপীড়নের’ অভিযোগ আনা হয়েছে। 

আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালতের এই কৌঁসুলি আরও জানান, নেতানিয়াহু ও গ্যালান্টের বিরুদ্ধে অভিযোগের মধ্যে রয়েছে ব্যাপক হত্যাযজ্ঞ সংঘটিত করা, মানবিক ত্রাণ সরবরাহ করতে না দেওয়াসহ ক্ষুধাকে যুদ্ধের হাতিয়ার হিসেবে ব্যবহার, যুদ্ধে বেসামরিক লোকজনকে ইচ্ছাকৃতভাবে লক্ষ্যবস্তু করা। 

এদিকে, করিম খানের এই আবেদনের পর ফ্রান্স জানিয়েছে যে দেশটি সিনওয়ার ও নেতানিয়াহুর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা চেয়ে আবেদনের পক্ষে আছে। গতকাল সোমবার এক বিবৃতিতে ফরাসি পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় এই অবস্থান ব্যক্ত করে। বিবৃতিতে বলা হয়, ‘ফ্রান্স আন্তর্জাতিক অপরাধ আদালত ও এর স্বাধীনতা এবং সব পরিস্থিতিতে দায়মুক্তির বিরুদ্ধে লড়াইকে সমর্থন করে।’

এনএ/


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ