শুক্রবার, ১৯ এপ্রিল ২০২৪ ।। ৬ বৈশাখ ১৪৩১ ।। ১০ শাওয়াল ১৪৪৫


হজের কোটা পূর্ণ হওয়া নিয়ে দ্বিধাবিভক্ত হজ এজেন্সি

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার

বিশেষ প্রতিনিধি: বেড়েছে হজের খরচ। চলতি বছর হজযাত্রীদের সর্বোনিম্ন খরচ হবে ৬ লাখ ৮০ হাজার টাকা। কোরবানিসহ অন্যান্য বিষয়ে খরচ করতে হবে আরও কিছু টাকা। এর ফলে অনেকেই হজের নিবন্ধন করতে পারছেন না।

হজের প্রাক নিবন্ধন করে রেখেছেন ২ লাখ ৬০ হাজারের বেশি মানুষ। কিন্তু দেড় সপ্তাহে হজের জন্য নিবন্ধনের সংখ্যা হচ্ছে মাত্র ১ হাজার ৩০০ এর কিছু বেশি। এক হজ ট্রাভেল এজেন্সির মালিক বলেন, অন্যান্যবার মাত্র ৪ থেকে ৫ দিনের মধ্যে নির্ধারিত কোটার হজযাত্রীদের নিবন্ধন হয়ে যায়। এরপর থেকেই আমাদের কাছে পরিচিতজনরা আবদার করতে থাকেন। আমার অমুক আত্মীয় আছে তাকে অবশ্যই এবার হজে নেওয়ার ব্যবস্থা করতে হবে। কিন্তু দুঃখজনক হলেও সত্য এবার এখনো আমরা কোনো হজযাত্রীর নিবন্ধন করাতে পারিনি। হজের খরচ বেড়ে যাওয়ায় অনেকে হয়তো হজে যেতে পারবেন না।

আল ওয়াসি হজ গ্রুপের পরিচালক মওলানা আব্দুল গফ্ফার খান বলেন, হজের খরচ বেড়েছে এটা সত্য। অনেক মনে করছেন সরকার এ খরচ বাড়িয়েছে। তাদের এ ধারণা ভুল। করোনার আগে মুয়াল্লিম ফি ছিলো মাত্র ৯০০ সৌদি রিয়াল। সেটি বেড়ে এখন হয়েছে ৬ হাজার রিয়াল। এতেই খরচ অনেক বেড়ে গেছে। এছাড়া করোনার আগে সৌদি ১ রিয়ালের বিনিময় মূল্য ছিল বাংলাদেশি মুদ্রায় ২০ টাকা। বর্তমানে ২৮ থেকে ৩০ টাকায় কিনতে হয় ১ রিয়াল। কখনো কখনো কিছু কমেও পাওয়া যায়। মূলত এসব কারনেই হজের খরচ বেড়েছে।

রাজশাহী ট্রাভেলসের মালিক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, এমনিতে এখন পর্যন্ত হজের জন্য রেজিস্ট্রেশন করছেন না খুব বেশি মানুষ। এখনো অনেক সময় বাকি আছে। অল্প কিছু দিনের মধ্যেই আশা করি সৌদি আমাদেরকে যে কোটা দিয়েছে সেই পূর্ণ হয়ে যাবে।

তিনি আরও বলেন, আমাদেরকে সরকার এখন যে কোটা দিচ্ছে সেটা হচ্ছে ১২ লাখ জনগণের হিসেবে। আদম শুমারিতে আমাদের জনসংখ্যা অনেক বেড়েছে। এখন ১৭ কোটি হয়েছে। এ অনুযায়ী আমরা ভবিষ্যতে আরো বেশি হজে যাওয়ার সুযোগ পাবো। আমার এজেন্সি থেকে ১০০ জন হজে যাবেন। তাদের কারোই এখন রেজিস্ট্রেশন করা হয়নি। অল্প দিনের মধ্যে তাদের রেজিস্ট্রেশন হয়ে যাবে।

বিশ্বে করোনা শুরুর পর থেকে বিভিন্ন নিয়ম-নীতি মেনে হজ পালন করতে হয়েছে। সর্বশেষ গত বছর বাংলাদেশ থেকে ৬০ হাজারের বেশি মানুষ হজ করার সুযোগ পেয়েছেন। এবারের পবিত্র হজের ক্ষেত্রে সব নিয়ম-নীতি তুলে নিয়েছে সৌদি সরকার। চলতি বছরে বাংলাদেশ থেকে হজে যেতে পারবেন এক লাখ ২৭ হাজার ১৯৮ জন।

কেএল/


সম্পর্কিত খবর