মুর্তির পায়ে কোরআন রেখে অবমাননার দৃষ্টতার শাস্তি দিতে হবে: নজিবুল বশর
অক্টোবর ১৪, ২০২১ ১১:০৪ অপরাহ্ণ

আদিয়াত হাসান: বাংলাদেশ তরিকত ফেডারেশন এর মাননীয় চেয়ারম্যান আলহাজ্ব সৈয়দ নজিবুল বশর মাইজভান্ডারি এমপি এবং মহাসচিব ড. সৈয়দ রেজাউল হক চাঁদপুরী এক যুক্ত বিবৃতিতে কুমিল্লায় পূজা মন্ডপে যে বা যারা মহাগ্রন্থ আলকোরআন, মুর্তির পায়ে রেখে অবমাননার দৃষ্টতা দেখিয়েছে তার তীব্র নিন্দা ও শাস্তি জানান।

নেতৃবৃন্দ বলেন, পুজা মন্ডবে মুর্তির পায়ে পবিত্র কোরআন শরীফ রেখে যে, অবমাননা কর পরিস্থিতি সৃষ্টি করেছে তা কোটি কোটি মুসলমানদের হৃদয়ে আঘাত ও ক্ষত সৃষ্টি করেছে। এ ধরনের গহিত কর্মকান্ড কোন ভাবে মেনে নেওয়া যায় না। প্রসাশন ও সরকার এর দ্বায় এড়িয়ে যেতে পারেন না। একই ভাবে ইসলাম শান্তি, সম্প্রীতি ও মানবতার ধর্ম । তাই এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে মন্দির ভাংঙচুর জ্বালাও পােড়াও ইত্যাদি ও ইসলাম সমর্থন করে না।

নেতৃবৃন্দ বলেন, অতীতেও আমরা দেখেছি বিভিন্ন সময়ে মসজিদে হামলা পবিত্র কোরআন শরীফ পুড়ানাে ইত্যাদি কর্মকান্ড সংগঠিত করেছে। গতকালের ঘটনা একই সূত্রের গাথা কিনা, এ ঘটনার সাথে যে যারা জড়িত, সে যেই হােক না কেন তাকে গ্রেফতার পূর্বক আইনের আওতায় এনে কঠোর শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে।

নেতৃবৃন্দ আরাে বলেন, স্বাধীন-স্বার্বভৌম বাংলাদেশে আবহমানকাল ধরে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি হাজারাে বছরের ঐতিহ্য থেকে বিভিন্ন ধর্ম ও জাতি গােষ্ঠীর লােকজন নিজ নিজ ধর্মীয় বিশ্বাস এবং আচার অনুষ্ঠান ধর্মীয় সম্প্রীতি বজায় রেখে স্বাধীন ভাবে পালন করে যাচ্ছে।

নেতৃবৃন্দ আরাে বলেন, অতীতের ঘটনা প্রবাহকে সামনে রেখে, এ ঘটনায় যারা সম্পৃক্ত রয়েছে এবং দেশী-বিদেশী ষড়যন্ত্রকারি কারাে হাত রয়েছে কিনা? যথাযথ তদন্তের মাধ্যমে তাদেরকে অতিদ্রুত খুঁজে বের করে আইনের আওতায় এনে গ্রেফতার পুর্বক কঠোর শাস্তি নিশ্চিত করার জন্য আইন শৃঙ্খলা রক্ষাকারি বাহিনী ও সরকারের প্রতি জোর দাবী জানান।

-কেএল