fbpx
           
       
           
       
সুদ বিরোধী ড. আব্দুস সাত্তার আবু গুদ্দার বর্ণাঢ্য জীবন
অক্টোবর ২৪, ২০২০ ৭:৩২ অপরাহ্ণ

আওয়ার ইসলাম: আধুনিক ইসলামী অর্থনীতি ও ব্যাংকিং বিশেষজ্ঞ আল্লামা অধ্যাপক ড আব্দুস সাত্তার আবু গুদ্দাহ পরপারে পাড়ি জমিয়েছেন। ইন্নালিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন। তার মৃত্যুতে মুসলিম উম্মাহ্ একজন সূদ বিরোধী ইসলামী অর্থনীতি প্রতিষ্ঠার দিকপালকে হারালো। আমাদের থেকে চির বিদায় নেয়া অনন্য ইসলামী অর্থনীতিবিদ ও তুলনামূলক ইসলামী আইনশাস্ত্রের সফল অধ্যাপক এই কর্মবীরের সংক্ষিপ্ত জীবনালেখ্য পেশ করছি।

জন্ম

শাইখ আবদুস সাত্তার আবু গুদ্দাহ ১৯৪০ সালে সিরিয়ার আলেপ্পোতে এক সম্ভ্রান্ত আলেম পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন।পিতার নাম ছিল আবদুল করিম। বিশ্ববরেণ্য হাদিস বিশারদ আলেমকুল শিরোমণি আল্লামা আব্দুল ফাত্তাহ আবূগুদ্দাহ রহ: হলেন তাঁর আপন ছাছা।

কৃতিত্বপূর্ণ শিক্ষা জীবন
শাইখ আবদুস সাত্তার ১৯৬৪ সালে দামেস্ক বিশ্ববিদ্যালয় থেকে শরিয়ায় বিএ পাশ করেন । একই বিশ্ববিদ্যালয় থেকে ১৯৬৫ সালে আইন বিষয়ক স্নাতক ডিগ্রি লাভ করেন।

মিশরের আল-আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ে ১৯৬৬ সালে শরিয়ায় এমএ আর ১৯৬৯ সালে হাদিসশাস্ত্রে এমএ করেন।পুনরায় আল-আজহার বিশ্ববিদ্যালয় থেকেই ১৯৭৫ সালে (তুলনামূলক ফিকহশাস্ত্রে )পিএইচডি ডিগ্রি অর্জন করেন।

বণ্যাঢ্য কর্মজীবন
প্রতিথযশা শিক্ষাবিদ ও কীর্তিমান গবেষক অধ্যাপক ডঃ আবদুস সাত্তার আবু গুদ্দাহ বিভিন্ন দেশে অনেক বিশ্ববিদ্যালয় ও প্রতিষ্ঠানে কাজ করেছেন তার

একটি সংক্ষিপ্ত তালিকা
সিরিয়ার একটি স্কুলে আরবী ভাষা ও ইসলাম ধর্মের শিক্ষক হিসেবে তার কর্মজীবেনর শুভ সূচনা( ১৯৬১-১৯৬৫)। ১৯৬৬ সালে সৌদি আরবের রিয়াদ ধর্মীয় ইনস্টিটিউটে উসুলে ফিকহের শিক্ষক হিসেবে যোগদান করেন। কুয়েত ধর্মীয় ইনস্টিটিউটে ফিকহ ও হাদিসের শিক্ষক হিসেবে কর্মরত ছিলেন (১৯৭৪-১৯৭৬)। কুয়েত বিশ্ববিদ্যালয়ের শরিয়া অনুষদ ও আইন অনুষদে অধ্যাপকের পদ অলংকৃত করেন (১৯৮৩-১৯৮৬) আল আজহার বিশ্ববিদ্যালয়ের সালেহ কামিল ইসলামী অর্থনীতি ইনস্টিটিউটে ভিজিটিং প্রফেসর ছিলেন দু’বছর।(১৯৯০-১৯৯২)।

কুয়েত ধর্মমন্রণালয়ের তত্ত্বাবধানে ফিকহ এনসাইক্লোপিডিয়ায় গবেষক এবং বিশেষজ্ঞ হিসেবে কাজ করেছেন। (১৯৭১- ১৯৯০)। ১৯৮৭- ১৯৯১ পর্যন্ত বিশ্ব জাকাত শরিয়া বোর্ডের সহকারী সেক্রেটারির দায়িত্ব পালন করেন।আর আমৃত্যু এর সদস্য ছিলেন। আল কুরআন অগ্রসর বিজ্ঞান অভিধান প্রকল্পের উপদেষ্টা ছিলেন।(১৯৮৯-১৯৯০)

সদস্য,আন্তর্জাতিক ইসলামী ফিকহ একাডেমী,জেদ্দা।(১৯৯৫- মৃত্যু)। সদস্য,ইউরোপীয় ফতোয়া ও গবেষণা বোর্ড।(১৯৫৫- মৃত্যু)। সদস্য,ইসলামী ব্যাংকিং স্টান্ডার্ড প্রণয়ন সংস্থা’আউফি’,বাহরাইন।(১৯৯৫-মৃত্যু)। তিনি অনেকগুলো ব্যাংকে শরিয়া বোর্ডের চেয়ারম্যান/ সদস্য হিসেবে কাজ করেছেন এর মধ্যে অন্যতম হলো:
সিরিয়া ইন্টারন্যাশনাল ইসলামী ব্যাংক,সিরিয়া সেন্ট্রাল ব্যাংক,আল হেলাল ব্যাংক আরব আমিরাত,শার্জা ইসলামী ব্যাংক,আবুধাবী ইসলামী ব্যাংক,বাইরাইন সেন্ট্রাল ব্যাংক ইত্যাদি।

রচনা ও গ্রন্থাবলি

আল্লামা ড,আব্দুস সাত্তার আবু গুদ্দাহ রহ: তুলনামূলক ইসলামী আইনশাস্ত্র, আর্থিক লেনদেন, ইসলামী ব্যাংকিং, যাকাত, অনুদান, হিসাববিজ্ঞান, আইনী শাসন, আইনী অধ্যয়ন, পাণ্ডুলিপি যাচাইকরণ পদ্ধতি এবং ইসলামী মেডিসিন বিষয়ে প্রচুর গবেষণা ও থিসিস তৈরি করেছেন।আরবি ভাষায় রচিত কয়েকটি গ্রন্থের নাম:
الخيار وأثره في العقود। دور الفقه الإسلامي في العصر الحاضر। الأجوبه الشرعية في التطبيقات المصرفية। بحوث في الفقه الطبي والصحة النفسية من منظور إسلامي
دليل الزكاة

ইন্তিকাল: দ্বীনি শিক্ষা সংস্কৃতি ও ইসলামী অর্থনীতির দিকপাল জ্ঞানতাপস আল্লামা ড,আব্দুস সাত্তার আবু গুদ্দাহ্ গত ২৩ অক্টোবর ২০২০ শুক্রবার সকাল বেলায় কানাডার মন্ট্রিয়াল শহরে শেষ নি:শ্বাস ত্যাগ করেন। তাঁর ইন্তিকালে মুসলিম দুনিয়া বিশেষত: উলামা মাশাইখ শোকাহত। যুগশ্রেষ্ঠ ইসলামী মনীষী আল্লামা ইউসুফ আল কারজাবি তাঁর ফেসবুক পেইজে মরহুমের স্মরণে বলেন: আমার ভাই ড, আব্দুস সাত্তার আবূগুদ্দাহর উপর আল্লাহর রহমত বর্ষিত হোক।তিনি ছিলেন তুলনামূলক ইসলামী আইন শাস্ত্রের অধ্যাপক ও সমকালীন শ্রেষ্ঠ ইসলামী অর্থনীতিবিদ।

বিশ্ব মুসলিম উলামা কংগ্রেসের সেক্রেটারি আল্লামা ড, আলী আল কুরাহদাগি তার প্রদত্ত শোকবাণীতে বলেন:তাঁর মৃত্যুতে আমরা একজন সম্ভ্রান্ত ভাই, ফিকহ বিশারদ আলেম ও বড় মাপের অর্থনীতিবিদকে হারালাম।ইসলামী অর্থনীতির জগতে তিনি ছিলেন একাই একজাতির সমতুল্য।এক্ষেত্রে তাঁর তুলনা বিরল।

আল্লাহ ড,আব্দুস সাত্তার আবু গুদ্দাহর পরকালীন জীবন সুখময় করুন এবং আমাদের দেশে ও তাঁর ন্যায় সূদমুক্ত ইসলামী অর্থনীতি প্রতিষ্ঠার গবেষক ও অগ্রনায়ক তৈরি করে দিন আর আমাদের দ্বীনি প্রতিষ্ঠান ও ইসলামী ব্যাংকগুলোকে এব্যাপারে উদ্যোগী হওয়ার তওফিক দিন।

লেখক: মাওলানা ইউসুফ নূর। ইমাম-খতিব দাঈ ও শিক্ষক,কাতার ধর্মমন্ত্রণালয়, নির্বাহী পরিচালক,আল নূর কালচারাল সেন্টার কাতার।

-এটি