198223

আল্লামা আহমদ শফীকে এক নজর দেখতে ফরিদাবাদে জনতার ঢল

আব্দুল্লাহ আল মুবিন।।
ফরিদাবাদ থেকে

বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশ এর সভাপতি ও চট্টগ্রাম মুঈনুল ইসলাম মাদরাসার মুহতামিম ও হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের আমির শায়খুল ইসলাম আল্লামা শাহ আহমদ শফী ইন্তেকাল করিয়াছেন। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন।

আজ শুক্রবার (১৮ সেপ্টেম্বর) রাজধানীর আজগড় আলী হাসপাতালে সন্ধ্যা ৬:২০ মিনিটে তিনি শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেছেন।

তাঁর মৃত্যুতে দেশে শোকের ছায়া নেমে এসেছে। শোকে ভাঁসছেন আলেমসমাজ। তাঁর মৃত্যুতে শোতবার্তা দিয়েছেন রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীসহ বিভিন্ন স্তরের গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

তাঁর মৃত্যুর খবর গণমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ার পর শোকাহত জনতা রাজধানীর আজগর আলী হাসপাতালের দিকে আসতে থাকে। সেখানে গোসল ও কাফন শেষে তাকে ঢাকার ঐতিহ্যবাহী বিদ্যাপীঠ জামিয়া আরাবিয়া ইমদাদুল উলুম ফরিদাবাদ মাদ্রাসায় আনা হয়।

সেখানেও দেখা যায় শোকাহত জনতার স্রোত। আল্লামা শাহ আহমদ শফীকে শেষ বারের মতো দেখতে হাজির হয়েছেন হাজারও মানুষ। এ সময় প্রিয় শায়েখকে একনজর দেখার জন্য মাদ্রাসা মাঠে দীর্ঘক্ষন লাইনে দাঁড়িয়ে অপেক্ষা করতে দেখা যায় অনেককে। অনেকের চোখে পানি, কেউ কেউ হতভম্ব হয়ে দাঁড়িয়ে আছেন। যেন এমন একটি ঘটনার জন্য কেউ প্রস্তুত ছিলেন না।

১৯ সেপ্টেম্বর শনিবার বাদ জোহর হাটহাজারী মাদরাসা প্রাঙ্গণে আল্লামা শাহ আহমদ শফী রহ.-এর জানাজার নামাজ অনুষ্ঠিত হবে। ঢাকায় কোনো জামাত হবে না। জানাজার এ সিদ্ধান্ত পারিবারিক ও আলেমদের সমন্বয়ে নেয়া হয়েছে।

উল্লেখ্য: আল্লামা শাহ আহমদ শফী রহ. সদালাপী, সত্যবাদী ও স্পষ্টভাষী একজন মানুষ ছিলেন। তিনি জন্ম দিয়েছেন হাজার হাজার আলেম উলামা, তিনি হয়ে আছেন লক্ষ কোটি উলামায়ে কিরামের মধ্যমনি। তিনি একজন নিরহংকার অথচ আত্মাভিমানী মানুষ। তার পথ ধরে নতুন প্রজন্মকে এগিয়ে যেতে হবে।

ওআই/আবদুল্লাহ তামিম

ads