রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ ।। ১ বৈশাখ ১৪৩১ ।। ৫ শাওয়াল ১৪৪৫


কওমি মাদরাসার ছাত্র-শিক্ষকদের হাত ধরে সুষ্ঠু নির্বাচনের অনন্য নজির


নিউজ ডেস্ক

নিউজ ডেস্ক
শেয়ার
ছবি : সংগৃহীত

আবু হামদান, বিশেষ প্রতিবেদক

সুষ্ঠু নির্বাচন উপহার দিয়ে অনন্য নজির সৃষ্টি করল কওমি মাদরাসার ছাত্র-শিক্ষকরা। সদ্য অনুষ্ঠিত বাংলাদেশ ট্রাক ও কভার্ডভ্যান ড্রাইভার্স ইউনিয়নের ত্রি-বার্ষিক নির্বাচন ২০২৩-২৬ নির্বাচনে  প্রিজাইডিং অফিসার এবং  পোলিং এজেন্টের দায়িত্ব পালন করে নতুন এক অভিজ্ঞতা অর্জন করল কওমি মাদরাসার ছাত্র-শিক্ষকরা।

শনিবার (৯ সেপ্টেম্বর) ঢাকা জেলা আওয়ামী লীগের কার্যালয়ে এই নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। নির্বাচনে দুটি প্যানেলে মোট ৫৮ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেছেন। এছাড়াও স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে ২জন অংশগ্রহণ করেছে। এতে মোট ভোটার সংখ্যা প্রায় ৬০ হাজার। এ নির্বাচনে ভোট গ্রহণের দায়িত্বে ছিলেন একঝাঁক কওমি আলেম ও ছাত্ররা।

জানা যায়, প্রতি বছরে নির্বাচনে কারচুপির অভিযোগ, প্রিজাইডিং অফিসার ও পোলিং এজেন্টেদের ঘুষ বাণিজ্য ইত্যাদি কারণে বাংলাদেশ ট্রাক ও কভার্ডভ্যান ড্রাইভার্স ইউনিয়নের নির্বাচন বারবার প্রশ্নবিদ্ধ হচ্ছিল।দায়িত্বশীলরা দুর্নীতির সঙ্গে জড়িত ছিল। এ কারণে এবার সুষ্ঠু নির্বাচনের লক্ষ্যে বাংলাদেশ সরকারের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামালের পরামর্শে আলেম-ওলামা ও মাদরাসা শিক্ষার্র্থীদের মাধ্যমে নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত নেয় সংগঠনটি।

অনুষ্ঠিত নির্বাচনে বিভিন্ন বুথে একজন শিক্ষক প্রিজাইডিং অফিসার ও ৩ জন করে ছাত্র পোলিং এজেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তেজগাঁও রেলওয়ে জামিয়া ইসলামিয়াসহ একাধিক মাদরাসা থেকে নির্বাচনী দায়িত্ব পালনের জন্য মোট ১৪০ জন ছাত্র-শিক্ষক অংশ নেয়।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে তেজগাঁও রেলওয়ে জামিয়া ইসলামিয়ার মুহতামিম বলেন মাওলান মুজিবুর রহমান ফয়েজী আওয়ার ইসলামকে, নির্বাচনকে সুষ্ঠু করার জন্যে তারা আস্থা রেখেছে কওমি তালিব ও আলিমগণের উপর। আগামী দিনের নেতৃত্ব পরিবর্তনেও জাতির আস্থার জায়গা হবে কওমি মাদরাসা, ইনশাআল্লাহ।

এদিকে নির্বাচন চলাকালীন সময়ে প্রার্থীরা বলেন, খুবই সুষ্ঠ সুন্দরভাবে নির্বাচন সকাল থেকে অনুষ্ঠিত হচ্ছে। আমরা আশা করি প্রত্যেকটি ভোটার সৎ এবং যোগ্য প্রার্থীকেই ভোট দিয়ে জয়যুক্ত করবেন। যাতে করে পরবর্তীতে আমাদের ট্রাক ও কাভার্ডভ্যান ড্রাইভার ইউনিয়নের সকল সদস্যদের বিপদে-আপদে পাশে থাকতে পারে। এছাড়াও ট্রাক ও কভার্ডভ্যান ড্রাইভাররা একে অন্যের ভাই। তাই এখানে বিশৃঙ্খলা হওয়ার মত কোন কারণ নেই। তাছাড়া নির্বাচনে যেই জয়ী হোক, তাদের নিয়ে এই ইউনিয়নের উন্নয়নে কাজ করবো।

এ সময় ভোটাররা বলেন, নির্বাচনে তো সকলকে জয়ী করতে পারবো না তবে যেই জয়ী হবে সে সকলকে নিয়ে এই ইউনিয়নের উন্নয়নে কাজ করবে এটাই আমাদের প্রত্যাশা। আমাদের সুখে-দুঃখে পাশে থাকবে এটাই আমাদের কাম্য।

আরএম/


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ