fbpx
           
       
           
       
শিরোনাম :
আহত মধুপুরের পীরকে হাসপাতালে দেখতে গেলেন আল্লামা আবদুল আউয়াল
মার্চ ৩১, ২০২১ ১০:৫৫ পূর্বাহ্ণ

কাউসার লাবীব।।

আহত হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমির মধুপুরের পীর আল্লামা আবদুল হামিদকে হাসপাতালে দেখতে গেলেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমির, হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ নারায়ণগঞ্জ জেলা শাখার আমির, নারায়ণগঞ্জ ওলামা পরিষদের আমির, নারায়ণগঞ্জ ডিআইটি মসজিদের খতিব আল্লামা আবদুল আউয়াল।

আওয়ার ইসলামকে এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আল্লামা আবদুল আউয়াল’র একান্ত সচিব মাওলানা মাসুদ পারভেজ।

তিনি জানান, গতকাল মঙ্গলবার (৩০ মার্চ) রাত ১১টার দিকে শায়েখ আল্লামা আবদুল আউয়াল গত (রোববার) ২৮ মার্চ হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের ডাকা হরতালে গুলিবিদ্ধ হয়ে আহত আল্লামা আব্দুল হামিদ পীর সাহেব মধুপুরীকে দেখতে ও তার শারীরিক অবস্থার খোজ খবর নিতে রাজধানীর ইসলামী ব্যাংক হসপিটালে যান। এ সময় তিনি আহত আল্লামা আব্দুল হামিদ পীর সাহেব মধুপুরীর সঙ্গে তার শারীরিক অবস্থা ও সমসাময়িক বিভিন্ন বিষয় নিয়ে কথাবার্তা বলেন।

প্রসঙ্গত, দেশের স্বাধীনতার সূবর্ণ জয়ন্তিতে ধর্মপ্রাণ সাধারণ মানুষ ও উলামায়ে কেরামকে হত্যার প্রতিবাদে গত রোববার (২৮ মার্চ) দেশব্যাপী হরতাল ডাকে উপমহাদেশের অন্যতম অরাজনৈতিক সংগঠন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশ। সে হরতালকে সমর্থণ জানিয়ে মাঠে নামেন হেফাজতে ইসলাম বাংলাদেশের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমির মধুপুরের পীর আল্লামা আবদুল হামিদ। তখন হরতাল পালনের সময় গুলিবিদ্ধ হোন তিনি।

গত রোববার ২৮ মার্চ দুপুর ১২ টা ৪০ মিনিটে মুন্সীগঞ্জের শিকারিপুর এলাকায় পিকেটিং চলাকালীন সময় গুলিবিদ্ধ হোন আল্লামা আব্দুল হামিদ। গুলিবিদ্ধ হওয়ার পরের একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে সোশ্যাল মিডিয়ায়। ভিডিওতে দেখা যায়, ‘আল্লামা আব্দুল হামিদ মধুপুর পীর সাহেব গুলিবিদ্ধ অবস্থায় আহত হয়ে পড়ে আছেন রাস্তার পাশে একটি দোকানের চৌকাঠে।’

অতঃপর তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য ভর্তি করা হয় রাজধানীর ইসলামী ব্যাংক হসপিটালে। বর্তমানে তার অবস্থার অনেকটা উন্নতি হয়েছে বলে জানিয়েছেন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ।

-কেএল

সর্বশেষ সব সংবাদ