শনিবার, ২২ জুন ২০২৪ ।। ৮ আষাঢ় ১৪৩১ ।। ১৬ জিলহজ ১৪৪৫


ইউরোপে বারবার কুরআন অবমাননা; কঠোর সমালোচনায় এরদোগান


নিউজ ডেস্ক

নিউজ ডেস্ক
শেয়ার
ছবি : সংগৃহীত

মাহমুদুল হাসান সুনান, আন্তর্জাতিক ডেস্ক 

তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রজব তাইয়্যেপ এরদোযগান ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশে সাম্প্রতিক কুরআন পোড়ানোর ঘটনাকে ঘৃণামূলক অপরাধ এবং বর্বরতার শামিল বলে মন্তব্য করেছেন। তিনি বলেন, ইউরোপের দেশগুলোতে ক্রমশ মুসলিমবিদ্বেষ ছড়িয়ে পড়ছে, যা প্রতিনিয়ত আমাদের উদ্বেগ বাড়াচ্ছে। মুসলিম হিসেবে আমরা সন্ত্রাসবাদ থেকে শুরু করে কুরআন পোড়ানোর মতো ঘৃণামূলক অপরাধের মুখোমুখি হচ্ছি।

৬ সেপ্টেম্বর তুরস্কের রাজধানী আঙ্কারায় ইউএস কাউন্সিল অফ মুসলিম অর্গানাইজেশনের (ইউএসসিএমও) সেক্রেটারি-জেনারেল ওসামা জামাল এবং তার প্রতিনিধি দলের সাথে বৈঠকের সময় তিনি এ মন্তব্য করেন।

প্রেসিডেন্ট এরদোগান সমগ্র মুসলিম বিশ্বকে এ ধরনের কর্মকাণ্ডের বিরুদ্ধে প্রতিরোধমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, আমরা সবসময় বলে আসছি ইউরোপে বাকস্বাধীনতার নামে পবিত্র গ্রন্থ কুরআন অবমাননা  একটি সুস্পষ্ট ঘৃণামূলক অপরাধ এবং বর্বরতা। বারবার  সুইডেন, নেদারল্যান্ডস এবং ডেনমার্কে কুরআনকে অবমাননা করে গোটা মুসলিম জাতিকে হামলা করা হচ্ছে। এসব কর্মকান্ড গণতন্ত্র ও মানবাধিকার প্রতিষ্ঠায় ব্যর্থ হয়েছে বলে ইঙ্গিত বহন করে।

এরদোগান উল্লেখ করেন, জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদ এবং মানবাধিকার কাউন্সিলের রেজুলেশন অনুযায়ী পবিত্র গ্রন্থের বিরুদ্ধে সহিংসতাকে আন্তর্জাতিক আইনের লঙ্ঘন বলে মনে করা হয়।

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ইউনিয়নকে বিশ্বব্যাপী ইসলামবিরোধী প্রচার এবং সন্ত্রাসবাদের প্রতিরোধে তাদের প্রচেষ্টা জোরদার করার জন্য আহ্বান জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট এরদোয়ান।

রাষ্ট্রপতি কমপ্লেক্সে অনুষ্ঠিত সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন, পররাষ্ট্রমন্ত্রী হাকান ফিদান, আকিফ চাগাতে কিলিক, পররাষ্ট্র নীতি ও নিরাপত্তার জন্য রাষ্ট্রপতির প্রধান উপদেষ্টা;এবং তুরস্কের শীর্ষ ধর্মীয় সংস্থা দিয়ানাত ফাউন্ডেশনের সভাপতি প্রফেসর ড.আলি এরবাশ প্রমুখ।

সূত্র: হুররিয়াত ডেইলি নিউজ।

 এমআর/


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ