শিরোনাম :
ব্রিটেনে মুসলিমদের ‘ঐক্যের সুর’
নভেম্বর ১১, ২০২১ ৭:০৬ অপরাহ্ণ

রফিকুল ইসলাম জসিম।।

ব্রিটেনের বিভিন্ন শহর থেকে মুসলিম শিশু-কিশোরদের নিয়ে ন্যাশনাল কুরআন কম্পিটিশন-২০২১ অনুষ্ঠিত হয়। গ্র্যান্ড ফিনালে উপলক্ষে প্রতিযোগীরা অভিবাবকদের সাথে গতকাল জড়ো হয়— লন্ডন রয়্যাল রিজেন্সি হলে।

‘দ্য ভয়েস অব ওয়াননেস’ বা ‘ঐক্যের সুর’ শিরোনামে অনুষ্ঠিত— TVONE UK-এর বর্ণাঢ্য আয়োজনটি ছিল এক কথায় অনন্য। মূলত এই প্রতিযোগিতার উদ্দেশ্য হলো— অমুসলিম সমাজে বসবাসরত মুসলিম নবপ্রজন্মের মেধাবীদের খুঁজে বের করা ও তাদের পরিচর্যার পথ তৈরি করে দেওয়া।

গত কয়েক মাস ধরে কোরআন তেলাওয়াত, ইসলামী বক্তৃতা ও তাজভিদের প্রতিযোগিতা চলে আসছিল। কয়েক ধাপে প্রায় ২৫০০ ছাত্র-ছাত্রীদের থেকে বাছাই করে— সেরা দশজনকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়। আর গতকাল ‘টপ টেন’ বা ‘সেরা দশ’র পারফরমেন্স পরিবেশিত হয়— এই অনুষ্ঠানে। তাদের মনোমুগ্ধকর তেলাওয়াত, বক্তব্য ও পরিবেশনা সকল ‍উপস্থিতিকে বিমুগ্ধ ও আপ্লুত করেছে।

অনুষ্ঠানে বিজয়ীদের পাশাপাশি বিচারকদেরও অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হয়। অত্যন্ত মনোজ্ঞ ও অপার্থিব সৌন্দর্যের এই অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করে— প্রায় দেড় হাজার শিক্ষার্থী ও অতিথিবৃন্দ। অন্যদিকে অনুষ্ঠানটি ছিল ইসলামী স্কলার ও চিন্তাবিদদের মিলনমেলা। আল্লাহ তাআলা কোরআনের আলোকে বিশ্বময় ছড়িয়ে দিন। আমাদের প্রতিটি কর্ম ও প্রচেষ্টা কবুল করে নিন।

উল্লেখ্য, ইউরোপের তৃতীয় বৃহত্তম মুসলিম অধিবাসীদের দেশ ব্রিটেন! দ্য মুসলিম কাউন্সিল কর্তৃক প্রকাশিত এক জরিপে দাবী করা হয়েছে, ব্রিটেনে প্রথমবারের মতো মুসলিম জনসংখ্যা ৩০ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। ব্রিটেনের রাজধানী লন্ডনের কোনো কোনো অংশে বসবাসকারী প্রায় অর্ধেকই হচ্ছে মুসলমান।

ব্রিটেনের বিভিন্ন শহরে এখন ভোটের জন্য মুসলমানদের কদর বাড়ছে। মুসলমানরাও বিভিন্ন নির্বাচনে স্বাধীনভাবে মত প্রকাশ করতে পেরে আশান্বিত। ব্রিটেনে আছে শরিয়াভিত্তিক ব্যাংকিং ব্যবস্থাও। ইসলামিক ব্যাংক অব ব্রিটেন হলো, ব্রিটেনের একটি বাণিজ্যিক ব্যাংক। যেটা ব্রিটিশ মুসলমানদের শরিয়াভিত্তিক অর্থনৈতিক সেবা সহায়তা প্রদান করার লক্ষে ২০০৪ সালের প্রতিষ্ঠিত হয়।

বর্তমানে লন্ডন, বার্মিংহাম, ম্যানচেস্টার এবং লেইসেস্টারে ব্যাংকটির একাধিক শাখা এবং ডিউসবারি, লিউটন ও টুথিংয়ে এর একাধিক এজেন্সি রয়েছে। এটিই প্রথম ব্রিটিশ ব্যাংক- যা পূর্ণাঙ্গভাবে ইসলামি মুলনীতি অনুসারে পরিচালনার দাবি করে। ওই ব্যাংকে মুসলিম এবং অমুসলিম সবাই সেবা নিতে পারেন।

-এটি

সর্বশেষ সব সংবাদ