২০১৯-০১-১২

মঙ্গলবার, ২৬ মার্চ ২০১৯

‘মুসলমান মুসলমানে ভ্রাতৃত্বের বন্ধন দৃঢ় করতে হবে’

OURISLAM24.COM
জানুয়ারি ১২, ২০১৯ , ২:২৩ অপরাহ্ণ
news-image

ইকরামুল হক চট্টগ্রাম দক্ষিণজেলা প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম ওমরগনি এমইএস কলেজের অধ্যাপক ও বিভাগীয় প্রধান, চট্টগ্রাম নবদূত ঐক্য পরিষদের মাননীয় প্রধান উপদেষ্টা ও পৃষ্ঠপোষক, ইসলামিক স্কলার মাওলানা ড. আ ফ ম খালিদ হোসেন বলেছেন, মুসলমানদের নববী আদর্শ লালন করে জীবন গঠন করতে হবে।

গতকাল (১১ জানুয়ারি’১৯) জুমাবার বাদে মাগরিব চট্টগ্রামের আনোয়ারা পরৈকাড়া ইসলাম প্রচার সংস্থা’র ব্যবস্থাপনায় আয়োজিত ইসলামী সম্মেলনে প্রথম দিন প্রধান বক্তার আলোচনায় তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, মুসলমানে মুসলমান ভ্রাতৃত্বের বন্ধন না থাকার ফলে আজ সিরিয়া, চীন, মায়ানমার সহ সারাদেশে মুসলমানের উপর বিপর্যয় নেমে এসেছে। আমরা মুসলমান নিরব কেন? আজ যদি ১৮ টা আরবদেশ ঐক্যবদ্ধ হয়ে যদি একটা হুংকার দেয় বিশ্বব্যাপী মুসলিম গণহত্যা ও নির্যাতন বন্ধ করুন, নতুবা আরব দেশের তোমাদের কোন মার্কেট কোম্পানী থাকতে পারবে না। আমি শতভাগ মনোবল নিয়ে বলতে পারি ২৪ ঘন্টার মধ্যে সারাদেশে মুসলমানের উপর নির্যাতন নীপিড়ন বন্ধ হয়ে যাবে।

তিনি আরো বলেন, আমার খুব আশঙ্কা হয় আগামী ৪০/৫০ বছরে পার্বত্য চট্টগ্রাম বাংলাদেশ থেকে কেটে আলাদা রাষ্ট্র গঠন হতে পারে। খ্রীষ্টানরা সেবার অন্তরালে পার্বত্য চট্টগ্রামের যে হারে ক্ষুদ্র নৃগোষ্ঠীদের (মার্মা, কেয়াং, লুসাই, তংছৈঙ্গা, ত্রীপুরা ও পাংকুয়া) কাছে খ্রীষ্টান ধর্ম প্রচার করে হাজার হাজার মানুষকে অনুসারী করে নিয়েছেন।

অতএব মুসলমান বসে থাকার সময় শেষ, বিশেষ করে চট্টগ্রামের মানুষ ঘুমন্ত বিবেক জাগ্রত করুন, নতুবা রোহিঙ্গা মুসলমানের মতো স্বদেশ ছেড়ে শরনার্থী হতে বেশি দেরি হবে না। পরে তিনি মুসলমান এনজিও গঠন করে পার্বত্য চট্টগ্রামে দ্বীনের দাওয়াত পৌছেঁ দেয়ার উপর জোর করেন।

সম্মেলনে সভাপতিত্ব করেন কৈখাইন আজিজিয়া এশায়তুল উলুম মাদরাসার পরিচালক ও আনোয়ারা পরৈকাড়া ইসলাম প্রচার সংস্থা’র উপদেষ্টা মাওলানা আব্দুল আলীম।

মাওলানা শিহাব উদ্দিনের সঞ্চালনায় কক্সবাজার রামু জোয়ারিয়ানালা মাদরাসার মুহাদ্দিস মাওলানা হাফেজ আব্দুল হক, চট্টগ্রাম জামিয়া মোজাহেরুল উলুম মিয়াখাননগরের মুহাদ্দিস মাওলানা কারী নুরুল্লাহ, নেত্রকোনা থেকে মাওলানা আল আমীন হোসাইনী, কৈয়গ্রাম জামিয়া হেমায়তুল ইসলাম মাদরাসার শিক্ষক মাওলানা নুরুল আমীন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

আরআর