২০১৮-০৯-০৫

বৃহস্পতিবার, ২১ মার্চ ২০১৯

জতিসংঘ অধিবেশনে ট্রাম্পের সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন না এরদোগান!

OURISLAM24.COM
news-image

আওয়ার ইসলাম: আগামী ১৮ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্কে অনুষ্ঠিতব্য জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে গিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাক্ষাৎ চাইবেন না বলেও জানান তুর্কি প্রেসিডেন্ট। খবর ডেইলি হুরিয়াত-এর।

তিনি বলেন, নিউইয়র্কে জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের অধিবেশনে গিয়ে মার্কিন প্রেসিডেন্টের সঙ্গে দেখা করার পূর্বনির্ধারিত কোনো কর্মসূচি নেই এবং তিনি তার (ট্রাম্প) সাক্ষাৎ চাইবেনও না।’

খবরে বলা হয়, তুরস্কে আটক যুক্তরাষ্ট্রের ধর্মযাজক এন্ড্রু ব্রানসনকে মুক্তি দেওয়ার আইনি প্রক্রিয়া এখনো চলমান আছে এবং তুরস্ক এ ব্যাপারে ওয়াশিংটনের ‘কোনো প্রকার অযৌক্তিক দাবিকে পরিপূরণ করবে না’।

তুরস্কে গ্রেফতার হওয়া অ্যান্ড্রু ব্রুনসন নামের ওই যাজককে মুক্তি না দিলে নতুন করে নিষেধাজ্ঞা আরোপের যে হুমকি মার্কিন প্রেসিডেন্ট দিয়েছেন তাও প্রত্যাখ্যান করেন তুর্কি প্রেসিডেন্ট।

তিনি বলেন, ‘তুরস্ক আইনের শাসনকে সম্মান করে এবং বেআইনি কোনো দাবি বিবেচনা করা হবে না।’ আইন অনুযায়ী ব্রুনসনের গ্রেফতার ও বিচার প্রক্রিয়া চলছে বলেও উল্লেখ করেন তুরস্কের দীর্ঘদিনের শাসক এরদোয়ান।

উল্লেখ্য, ২০১৬ সালে তুরস্কে যে ব্যর্থ সামরিক অভ্যুত্থান হয়, তার সঙ্গে ওই মার্কিন যাজকের সংশ্লিষ্টতা রয়েছে এমন অভিযোগে গ্রেফতার করা হয় ব্রুনসনকে। সম্প্রতি ডোনাল্ড ট্রাম্প ব্রুনসনকে ছেড়ে দিতে আঙ্কারাকে চাপ দেন।

কিন্তু এতে কোনো কাজ না হওয়ায় তুরস্কের স্টিল ও অ্যালুমিনিয়াম আমদানির ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেন ট্রাম্প। তুরস্কও একই পদক্ষেপ নেয়।

এ নিয়ে দুই দেশের কূটনীতিক সম্পর্কে ব্যাপক টানাপড়েন চলছে। মার্কিন ডলারের বিপরীতে তুর্কি মুদ্রা লিরার দাম পড়ে গেছে। কিন্তু তারপরও আঙ্কারা কোনো সাড়া না দিয়ে বরং বিকল্প উপায়ে পরিস্থিতি মোকাবিলার উদ্যোগ নিয়েছে।

এর মধ্যেই কয়েক দিন আগে ট্রাম্প বলেছেন, মার্কিন যাজক ব্রুনসনকে ছেড়ে না দিলে আঙ্কারার ওপর আরো অবরোধ আরোপ করবে ওয়াশিংটন। কিন্তু তাতেও পাত্তা দেয়নি আঙ্কারা।

বিসফটি – বিস্তারিত জানুন

আরএম/