রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ ।। ১ বৈশাখ ১৪৩১ ।। ৫ শাওয়াল ১৪৪৫

শিরোনাম :

আল্লামা পাহারপুড়ীর ইন্তেকালে আলেমদের শোক

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার

paharpuri_ourislamমতামত নিয়েছেন আব্দুল্লাহ বিন রফিক ও মোস্তফা ওয়াদুদ

সদ্য ইন্তেকাল করেছেন এদেশের খ্যাতনামা আলিমে দ্বীন হাজারো লক্ষ্য আলিমের মুরুব্বী শায়েখ আব্দুল হাই পাহাড়পুরী রহ.। তার ইন্তেকালে যা শূন্য হয়ে গেলো তা কখনও পূরণ করা যাবে কী না তা আল্লাহই ভালো জানেন। তার মৃত্যুতে রাজধানীর শীর্ষস্থানী আলেমগণ আওয়ার ইসলামের মাধ্যমে শোক জানিয়েছেন।

মাওলানা আব্দুল মালেক

‘আল্লাহ হজরতকে জান্নাত নসীব করুন। সারাটা জীবন তিনি ব্যয় করেছেন দ্বীনের স্বার্থে।’ তারপর হুযুর কান্নায় ভেঙে পড়েন আর কথা বলতে পারেননি।

মহিউ মাওলানা মাহমুদুল হাসান

তিনি বলেন, ‘‘হযরত অত্যন্ত মুখলিস একজন মানুষ ছিলেন। তাঁর সাথে আমার গভীর সম্পর্ক ছিলো। একসাথে পাকিস্তানে পড়ালেখা করেছি। তিনি পাকিস্তানেও অনেক কষ্ট করে পড়া-লেখা করেছেন। আল্লাহ তাঁকে জান্নাত নসীব করুন। আমি অসুস্থ না হলে আমিও তাঁর জানাযায় যেতাম।’’

শাইখুল হাদিস আল্লামা আব্দুল হাই পাহাড়পুরী আর নেই

আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ

মাওলানা আবদুল হাই পাহাড়পুরীকে বিশুদ্ধ মানুষ গড়ার কারিগর উল্লেখ করে বাংলাদেশ জমিয়তুল উলামার চেয়ারম্যান ও ঐতিহাসিক শোলাকিয়ার ইমাম আল্লামা ফরীদ উদ্দীন মাসঊদ বলেন, দারুল উলূম দেওবন্দ ও আকাবীরের উত্তরসূরী মাওলানা আবদুল হাই পাহাড়পুরী কওমী অঙ্গনের আলোকবর্তিকতা হিসেবে কাজ করতেন। তার মৃত্যুতে দেশ একজন দরদি শিক্ষক ও অভিভাবক হারালো।
আজকের তরুণপ্রজন্মকে কুরআন হাদিসের বুৎপত্তি অর্জনের প্রতি আহ্বান জানিয়ে আল্লামা মাসঊদ বলেন, পড়ালেখায় কঠোর পরিশ্রম ও নিজেকে গড়া তোলা ছাড়া আর কোনো পথ নেই। মাওলানা পাহাড়পুরীসহ বিশেষজ্ঞ আলেমদের মৃত্যুতে শিক্ষার্থীদের অধ্যবসায়ে মনোনিবেশ করার অঙ্গীকারই হবে প্রথম কাজ।

shirsha alem

আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী

আল্লামা আব্দুল হাই পাহাড়পুরীর মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাষ করে জমিয়তে উলামায়ে ইসলাম বাংলাদেশের মহাসচিব আল্লামা নূর হোসাইন কাসেমী।  তিনি বলেন, আমরা জাতির এক অতন্দ্র প্রহরীকে হারালাম। তিনি আমাদের জন্য অনেক বড়ো এক নেয়ামাত ছিলেন। তার শূন্যতা আমি প্রতি সময় উপলব্দি করবো। তিনি তাঁর ব্যাপারে সংক্ষেপে স্মৃতিচারণ করে বলেন, তিনি ইলমের লাইনে ছিলেন এক মহান জ্ঞানী। আবার তাসাউফের লাইনে ছিলেন মহান সাধক। আল্লাহ তায়ালা তাকে জান্নাত নসীব করুন।

অধ্যক্ষ মাওলানা ইউনুস আহমদ

ইসলামী আন্দোলনের মহাসচিব অধ্যক্ষ ইউনুস আহমদ তার আত্মার মাগফেরাত কামনা করে বলেন, আল্লামা আব্দুল হাই পাহাড়পুরী আমাদের জন্য একটি সূর্য ছিলেন। আমরা প্রতিদিন সূর্য দেখি। কিন্তু তিনি এমন সূর্য ছিলেন যা আর আমরা দেখবো না। একমাত্র আল্লাহ তায়ালাই জানেন, যুগের এ মহান মনিষীর জায়গা পূরণ হবে কিনা। আল্লাহ তাকে জান্নাতবাসী করুন।

জানাজা আজ রাতে কামরাঙ্গির চরে

ড. আ.ফ.ম. খালিদ হোসেন

‘‘আমরা হযরতকে হারিয়ে অত্যন্ত মর্মাহতও শোকাহত। তিনি সারা জীবন সুন্নাহর দেখানো পথ অনুসরণ করেছেন। আমরা যেনো সারা জীবন তিনি যে পথে হেটেছেন আমরাও যেনো সে পথে হাটতে পারি। এবং দু‘আ করি আল্লাহ তাকে জান্নাত নসীব করুন।’

আরআর

হজরত পাহাড়পুরী হুজুরের বরকতময় পদধূলি


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ