রবিবার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ ।। ১ বৈশাখ ১৪৩১ ।। ৫ শাওয়াল ১৪৪৫

শিরোনাম :

টিভি দেখলে হ্রাস পাবে স্মরণশক্তি!

নিউজ ডেস্ক
নিউজ ডেস্ক
শেয়ার

tv3আওয়ার ইসলাম: ইন্টারনেট আর টিভি বর্তমান সময়ের এক জনপ্রিয় জিনিসে পরিণত হয়েছে। টিভি না দেখলে যেনো ভাত হজম হয়না। অথচ বিশেষজ্ঞরা বলেছেন টিভি বেশি দেখলে স্মরণশক্তি হ্রাস পেতে পারে।

কথায় বলা হয় অতিরিক্ত সব কিছুই খারাপ। কথাটির যথার্থতা রয়েছে। অনেকেই আছেন যারা ঘণ্টার পর ঘণ্টা টেলিভিশন সেটের সামনে বসে থাকেন। তারা চোখের ফুসরত দেন না। যারা বেশি সময় টিভির সামনে বসে থাকেন তারা চোখের অসুখ এবং স্মরণশক্তি হ্রাস পাওয়া রোগে (ডিমনেশিয়া) আক্রান্ত হতে পারেন।

সম্প্রতি এমন একটি গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন ভারতের ন্যাশনাল ইনস্টিটউট অব মেন্টাল হেলথ অ্যান্ড নিউরো সায়েন্সেস’র (নিমহান্স) অধ্যাপক পার্থসারথি সতীশচন্দ্র।

অধ্যাপক পার্থসারথি সতীশচন্দ্র এ বিষয়ে বলেছেন, কাজকর্ম রেখে যারা সকাল-সন্ধ্যা সারাক্ষণ টিভি দেখতে ব্যস্ত থাকেন তাদের জন্য এটি অবশ্য একটি দুঃসংবাদই।

অধ্যাপক পার্থসারথি সতীশচন্দ্র আরও বলেছেন, আমরা আগে থেকেই জানি বয়স বৃদ্ধির সঙ্গে সঙ্গে বয়োবৃদ্ধদের মধ্যে স্মরণশক্তি হ্রাস অর্থাৎ এই ভুলে যাওয়ার প্রবণতা বেশি দেখা যায়। কিন্তু গবেষণায় দেখা যাচ্ছে, এই রোগে আক্রান্ত হওয়ার হার এখন বেশি দেখা যাচ্ছে বলিষ্ঠদের মধ্যেও। তিনি বলেছেন, চুপ করে শুয়ে-বসে থাকা কিংবা ঘণ্টার পর ঘণ্টা এক নাগাড়ে টিভি দেখা, আবার একাকি সময় কাটানোর কারণেও মস্তিষ্কের কার্যপ্রক্রিয়ার ক্ষমতা অনেক সময় কমে যায়।

অধ্যাপক পার্থসারথির মতে, বেশি বয়সে ভুলে যাওয়ার রোগকেই আমরা ডিমনেশিয়া বলে থাকি। তবে এই রোগের কারণে করা ভুল কোনো ছোট-খাট ভুল নয়, ডিমনেশিয়ায় আক্রান্ত হলে অনেক ঘনিষ্ঠজনকেও চিনতে সমস্যা হয়।

নিমহান্স’র প্রখ্যাত এই অধ্যাপক আরও জানান যে, ডায়াবেটিস, হেড ট্রমা ইনজুরি, হাইপার টেনশন, অবসাদ, রক্তনালীজনিত রোগের কারণেও অবশ্য ডিমনেশিয়া রোগে যে কেও আক্রান্ত হতে পারেন।

তিনি অতিরিক্ত টিভির সামনে বসে না থেকে অন্যদিকেও মনোনিবেশ করার ওপর গুরুত্বআরোপ করে বলেছেন, টিভি দেখলেও একটানা টিভি দেখা মোটেও উচিৎ নয়। কারণ অতিরিক্ত টিভি দেখার ফলে চোখের যেমন ক্ষতি হতে পারে তেমনি ব্রেনও এটি এফেক্ট করতে পারে।

এআর


সম্পর্কিত খবর


সর্বশেষ সংবাদ