বৃহস্পতিবার, ০৮ জুন ২০২৩ ।। ২৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩০ ।। ১৯ জিলকদ ১৪৪৪


গাজীপুরের মানুষ জুলুমের জবাব দিয়েছেন: জায়েদা খাতুন


আওয়ার ইসলাম ডেস্ক :

আওয়ার ইসলাম ডেস্ক :
শেয়ার

গাজীপুর সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র জায়েদা খাতুন বলেছেন, আমার এ নির্বাচনে অংশগ্রহণ ছিল মিথ্যা, ষড়যন্ত্র ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে একটি প্রতিবাদ। আমি আমার গাজীপুরবাসীর নিকট ন্যায়বিচার পেয়েছি। আমার ছেলের বিরুদ্ধে যে অন্যায়, অবিচার ও অত্যাচার করা হয়েছে, গাজীপুরের সাধারণ মানুষ ব্যালটের মাধ্যমে তার জবাব দিয়েছে। আমি গাজীপুরের সব শ্রেণিপেশার ও সর্বস্তরের মানুষের সঙ্গে নিয়ে আগামীর পথ চলতে চাই। 

শুক্রবার ভোর ৪টার দিকে মহানগরের ছয়দানায় তার নিজ বাসায় সন্তানের মুখে বিজয়ের কথা শুনে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় জায়েদা খাতুন এসব কথা বলেন। 

জায়েদা বলেন, আজকের এ বিজয় আমি গাজীপুরবাসীকে উৎসর্গ করলাম। আমার সঙ্গে ছিল সাধারণ মানুষ এবং সাংবাদিকরা। আমি গাজীপুরবাসী ও সাংবাদিকদের প্রতি কৃতজ্ঞ। 

তিনি বলেন, আমি এবং আমার ছেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দেখা করে তার পরামর্শ ও দিকনির্দেশনা নিয়ে সিটি করপোরেশনের কর্মকাণ্ড পরিচালনা করতে চাই। আমার নির্বাচনি ইশতেহারে দেওয়া প্রতিশ্রতি অনুযায়ী গাজীপুরকে একটি আধুনিক, সবুজ ও সুন্দর একটি বাসযোগ্য নগরী গড়তে কাজ করব। এর জন্য আমি সবার সহযোগিতা চাই। 

এ সময় সাবেক মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম তার কর্মী-সমর্থকদের কারও প্রতি বিরূপ মনোভাব প্রদর্শন না করার জন্য অনুরোধ জানান। তিনি অ্যাডভোকেট আজমত উল্লা খানকে বড়ভাই হিসেবে তার সব ভুলভ্রন্তি ক্ষমা করে দেওয়ার অনুরোধ করেন। 

গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে স্বতন্ত্র মেয়রপ্রার্থী (টেবিল ঘড়ি) প্রতীকে ২ লাখ ৩৮ হাজার ৯৩৪ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন সাবেক মেয়র মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলমের মা জায়েদা খাতুন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামী লীগের আজমত উল্লা খান নৌকা প্র্রতীকে ২ লাখ ২২ হাজার ৭৩৭ ভোট পেয়েছেন। ১৬ হাজার ১৯৭ ভোটের ব্যবধানে তিনি জয়লাভ করেন।

কেএল/


সম্পর্কিত খবর