138881

বেফাকের সহ-সভাপতি মনোনীত হলেন চরমোনাই পীর

আবদুল্লাহ তামিম: ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর, বাংলাদেশ কুরআন শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান, মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাইকে বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশের সহসভাপতি মনোনীত করা হয়েছে।

আজ রোববার বিশ্ব ইজতেমা সফলে বাংলাদেশ কওমি মাদরাসা শিক্ষা বোর্ড বেফাক-এর জরুরি পরামর্শ সভায় এ সিদ্ধান্ত জানানো হয় বলে জানিয়েছেন বেফকের মহা-পরিচালক মাওলানা যোবায়ের আহমদ চৌধুরী।

এছাড়াও আজকের এ জরুরি পরামর্শ সভায় আরো তিনটি সিদ্ধান্ত হয়েছে বলে জানিয়েছেন সংস্থাটির সহ-সভাপতি মাওলানা মুসলেহ উদ্দিন রাজু। রোববার (১০ ফেব্রুয়ারি) সকাল ১০টায় শুরু হওয়া এ সভা বেলা ২টার দিকে শেষ হয়।

মাওলানা মুসলেহ উদ্দিন জানান, ইজতেমা সফলে তিন সিদ্ধান্ত হয়েছে। প্রথম সিদ্ধান্ত হলো, ইজতেমায় ওলামা-মাশায়েখ, মাদ্রাসা, স্কুল-কলেজ-ভার্সিটির ছাত্র-শিক্ষকসহ সর্বস্তরের মুসলমানের বিপুল অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা।

দ্বিতীয় সিদ্ধান্ত হলো, কাদিয়ানি সম্প্রদায়ের ইজতেমা বন্ধের পাশাপাশি তাদের রাষ্ট্রীয়ভাবে অমুসলিম ঘোষণা। তৃতীয় সিদ্ধান্ত হলো, ভারতের তাবলিগ জামাতের মুরব্বি মাওলানা সাদ কান্ধলভীকে বাদ দিয়েই ইজতেমা অনুষ্ঠান এবং এক্ষেত্রে সরকারের সহযোগিতা নেওয়া।

বেফাকের সিনিয়র সহসভাপতি আল্লামা আশরাফ আলীর সভাপতিত্বে মিটিংয়ে অংশগ্রহণ করেন মাওলানা নূর হোসাইন কাসেমী, মুফতি ফয়জুল্লাহ, মাওলানা নূরুল ইসলাম, মাওলানা সাজিদুর রহমান, মাওলানা মুসলেহ উদ্দীন রাজু এবং বেফাকের মহাসচিব মাওলানা আব্দুল কুদ্দুস, সহকারী মহাসচিব মাওলানা মাহফুজুল হক ও বেফাকের মহাপরিচালক মাওলানা জুবায়ের আহমদ চৌধুরী প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ১২ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ সোমবার ১০ম কাউন্সিলের অধিবেশনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর আমীর মুফতী সৈয়দ মুহাম্মদ রেজাউল করীম পীর সাহেব চরমোনাইকে বেফাকুল মাদারিসিল আরাবিয়া বাংলাদেশের সহসভাপতি মনোনীত করতে নাম উত্তাপন করা হয়। সে ভিত্তিতে আজকের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত হয় বলে জানা যায়।

-এটি

ad

পাঠকের মতামত

One response to “‘হাইয়াতুল উলইয়ার সিদ্ধান্ত মেনেই পরীক্ষা দেবে যাত্রাবাড়ী মাদরাসা’”

  1. Md Rana says:

    Mirpur ar majhew fozilat jamater proshno fas hoise aktu khoj nen apnara

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *