138889

‘ঘুষ দুর্নীতি ও ক্ষমতাসীনদের খাই খাই রাজনীতির কারনে কৃষক ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছ’

আওয়ার ইসলাম: ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের প্রেসিডিয়ামের অন্যতম সদস্য ডা. মোখতার হোসাইন বলেছেন, কৃষি প্রধান বাংলাদেশের কৃষকরা ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার অন্যতম কারণ হচ্ছে ক্ষমতাসীনদের খাই খাই রাজনীতি। স্বাধীনতার ৪৭ বছর পরেও প্রিয় মাতৃভূমি বাংলাদেশ আজ ঘুষ খোর আর দুর্নীতিবাজদের কবলে। ঘুষ খোর দুর্নীতিবাজরা দেশে দাবিয়ে বেড়াচ্ছে।

তিনি বলেন, সৎ মানুষগুলো আজ অহসায়ের মত স্বাধীন দেশে বসবাস করে অনেক ক্ষেত্রে মৌলিক ও মানবাধিকার বঞ্চিত হচ্ছে। দেশের কৃষকরা সৎ ও পরিশ্রমী হওয়ার কারণে তারাও ক্ষতিগ্রস্ত হয়েই যাচ্ছে।

তিনি ন্যায্য অধিকার ও মর্যাদা প্রতিষ্ঠায় গ্রামে গ্রামে ইসলামী কৃষক-মজুর আন্দোলন এর শাখা গড়ে তুলতে কৃষকদের প্রতি আহবান জানান।

আজ রোববার বিকেলে খুলনার নবপল্লী কমিউনিটি সেন্টারে ইসলামী কৃষক-মজুর আন্দোলন খুলনা জেলা ও মহানগর শাখার নতুন কমিটির পরিচিতি সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি উপরোক্ত কথা বলেন।

সংগঠনের খুলনা মহানগর সভাপতি হাফেজ মাওলানা আব্দুল্লাহ আল মাসুম এর সভাপতিত্বে মাওলানা শাহ্ আলম ও মোঃ হায়দার আলীর যৌথ পরিচালনায় অনুষ্ঠিত পরিচিতি সভায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, ইসলামী কৃষক-মজুর আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি গাজী নূর আহমদ, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ খুলনা মহানগর সভাপতি অধ্যক্ষ মাওলানা মুজাম্মিল হক। প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন, ইসলামী কৃষক-মজুর আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সাধারণ সম্পাদক শহিদুল ইসলাম কবির।

বক্তব্য রাখেন, শেখ মোঃ নাছির উদ্দিন, গোলাম মোস্তফা সজিব মোল্লা, প্রভাষক মাওলানা আব্দুল্লাহ ইমরান, তরিকুল ইসলাম কাবির, মুফতী আমানুল্লাহ, নূরুল হুদা সাজু, ইঞ্জি এজাজ মানসুর, জিএম নওশের আলী, মোঃ জাহিদুল ইসলাম ও মোঃ আবুল কালাম আজাদ প্রমূখ।

প্রধান বক্তা শহিদুল ইসলাম কবির বলেন, কৃষি প্রধান বাংলাদেশে কৃষকরা আজ অসহায়। তারা অধিকার হারা। বাংলাশের কৃষক যদি ক্ষতিগ্রস্ত হতেই থাকে তবে এদেশে কৃষক, কৃষি এবং কৃষিপন্য খুঁজে পাওয়া যাবে না। বিদেশ থেকে সকল কৃষি পন্য আমদানী করতে হবে। টমেটো, ফুলকপিসহ বিভিন্ন সবজি বিদেশ থেকে আমদানী করতে হবে। এ অবস্থা চলতে পারে না।

তিনি বলেন, সরকারের অব্যবস্থাপনার কারনে বছরে ৩০ হাজার কোটি টাকার ফল, ফসল ও সবজি অপচয় হচ্ছে। অথচ সরকার এই অপচয় বন্ধ করতে পারলে কৃষককে ফসল উৎপাদন করে বাজারে গিয়ে কান্নায় ভেঙ্গে পড়তে হতো না।

-এটি

ad

পাঠকের মতামত

One response to “‘হাইয়াতুল উলইয়ার সিদ্ধান্ত মেনেই পরীক্ষা দেবে যাত্রাবাড়ী মাদরাসা’”

  1. Md Rana says:

    Mirpur ar majhew fozilat jamater proshno fas hoise aktu khoj nen apnara

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *